এফিলিয়েট মার্কেটিং কি? মার্কেটিং করার সহজ পদ্ধতি


এফিলিয়েট মার্কেটিং করে অনলাইন ইনকাম করার সহজ পদ্ধতি। যারা অনলাইনে কিছু হলেও ঘাটা ঘাটি করেন তারা কিছুটা হলেও জানেন যে, এফিলিয়েট মার্কেটিং কি এবং কিভাবে কাজ করতে হয়।

আপনারা হয়তো অনেকেই আছেন জানেন না এফিলিয়েট মার্কেটিং কি, কিভাবে করতে হয় আবার অনেকেই আছেন এফিলিয়েট মার্কেটিং করে জীবন উন্নয়ন করছেন।

আমাদের www.eduandjobs.com ওয়েবসাইটে আসার জন্য স্বাগতম। আমাদের এই পেজে পাবেন সরকারি, বেসরকারি, এনজিও, ব্যাংক, ডিফেন্স চাকরির খবর সহ জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের আপডেট খবরা খবর এবং অনলাইনের মাধ্যমে ইনকাম করার সহজ পদ্ধতি।

বিশ্বের অনেক মানুষ আছে যারা এফিলিয়েট মার্কেটিং করে অনেক টাকা ইনকাম করছে নিজের অভিজ্ঞতা থেকে। আজ আমি আপনাদের জানাবো কিভাবে আপনি বাংলাদেশ থেকে কোন টাকা পয়সা খরচ ছাড়াই আপনার ওয়েবসাইট, ইউটিউব চ্যানেল, ফেসবুক পেজ, ইমেইল ইত্যাদির মাধ্যমে এফিলিয়েট মার্কেটিং করে লক্ষ লক্ষ টাকা আয় করতে পারবেন।

এই নিবন্ধে এফিলিয়েট মার্কেটিং করে ইনকাম করার পদ্ধতি শেয়ার করবো। আপনি যদি মনযোগ দিয়ে আর্টিকেল গুলো পড়েন তাহলে সহজে মার্কেটিং করার পদ্ধতি বুঝতে পারবেন।

আরও দেখুনঃ

১. মোবাইলে অনলাইন আয়

২. ওয়েবসাইট থেকে টাকা আয়

৩. ফেসবুক থেকে আয়

৪. ইউটিউব থেকে আয়

৫. ব্লগিং করে আয় করার সহজ পদ্ধতি

এফিলিয়েট মার্কেটিং কি?

এফিলিয়েট মার্কেটিং করে যারা আয় করেন তারা অনেক ভালো জানেন তবে যারা জানেন না তাদের জন্য এফিলিয়েট মার্কেট হলো আপনি কোন একটি কোম্পানির পণ্য বা সার্ভিস সেল করে দিবেন। তার বিনিময়ে সেখান থেকে আপনি মোটা অংকের টাকা ইনকাম করতে পারবেন এটি একটি সহজ পদ্ধতি।

কিভাবে এফিলিয়েট মার্কেটিংক করবেন?

মার্কেটিং করার জন্য আপনার ভালো জ্ঞান থাকতে হবে। মার্কেটিং করার জন্য অনেক কোম্পানির সাথে সম্পর্ক স্থাপন করতে হবে। যেমন আমার একটি টি-শার্টের কোম্পানি আছে এবং সেখানে আমি আমার কোম্পানির অনেক মার্কেটিং করছি।

কিন্তু সেল একটা খুব ভালো হচ্ছে না। সেল না হওয়ার কারণে অনেক কোম্পানির মালিক তাদরে পণ্য বিক্রয়ের জন্য অনলাইন ব্যবসায়ীদের কাছে পণ্য বিক্রয় করার প্রচার চালানোর জন্য বিনিময় করে থাকে। যেমন আপনার একটি ওয়েবসাইট, ইউটিউব চ্যানেল, ফেসবুক পেজ বা ইমেইল রয়েছে। সেখানে অনেক ভিজিটর আছে তার ফলে আপনি উক্ত কোম্পানির পণ্য উপস্থাপন করতে পারবেন এবং পণ্য সেল করতে পারবেন।

অবশ্যই পড়বেনঃ

১. বাংলা আর্টিকেল লিখে ইনকাম

২. অনলাইন থেকে ইনকাম

৩. গুগল এডসেন্স থেকে ইনকাম

৪. ডিজিটাল মার্কেটিং করে ইনকাম

আপনি উক্ত মিডিয়ার মাধ্যমে পণ্য সেল করে দেন বা বিজ্ঞাপন প্রচার করেন এবং প্রতি সেল এ কোম্পানির মালিকরা পণ্যের দাম হতে ১০% থেকে ২০%  যে কোন একটি এমাউন্ট কমিশন হিসেবে প্রদান করবে। প্রতিটি পণ্য সেল করলে নিদির্ষ্ট পরিমাণের টাকা ইনকাম করতে পারবেন এফিলিয়েট মার্কেটিং করে।

পরিশেষেঃ

আপনি যদি আমাদের আর্টিকেল ভালো ভাবে বুঝতে পারেন তাহলে উক্ত সহজ পদ্ধতিতে আপনি অনলাইন থেকে টাকা ইনকাম করতে পারবেন। আমাদের পেজে সময় দেওয়ার জন্য আপনাকে ধন্যবাদ। আটির্কেলটি ভালো লাগলে আপনার বন্ধুদের মাঝে শেয়ার করতে ভুলবেন না।  

Post a Comment

0 Comments